বাংলাদেশের মাগুরায় নিজ স্ত্রী কেটে দিল স্বামীর পুরুষাঙ্গ

by Imran ahmed on আগস্ট ১৭, ২০১৩পোস্ট টি ৩৯১ বার পড়া হয়েছে in স্বদেশ এর সংবাদ

বাংলাদেশের মাগুরা জেলায় আখতার মোল্লা (৩৮) নামে এক ব্যক্তির পুরুষাঙ্গ কেটে দিয়েছে দ্বিতীয় স্ত্রী নাসিমা খাতুন।বৃহস্পতিবার ভোর রাতে শহরতলীর নিজনান্দুয়ালী এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। তিনি শ্রীপুর উপজেলার রাধানগর এলাকার মাঙ্গনডাঙ্গা গ্রামের ছরোয়ার মোল্লার ছেলে।

আখতারের আত্মীয় রেবেকা খাতুন জানান, আখতারের গ্রামের বাড়ি মাঙ্গনডাঙ্গায়। সেখানে তার প্রথম স্ত্রী শাবানাসহ ৩ সন্তান রয়েছে। ৩-৪ মাস আগে আখতার একই গ্রামের দেলবর হাজামের মেয়ে নাসিমা খাতুনকে বিয়ে করে শহরের নিজনান্দুয়ালী পূর্ব পাড়ার হাফিজ নামে এক ব্যক্তির বাড়ি ভাড়া নেয়। সেখানে বসবাসরত অবস্থায় তাদের মধ্যে দাম্পত্য কলহ ও বিরোধ চলছিল। বৃহস্পতিবার রাতে তাদের দু’জনের মধ্যে ঝগড়া হয় এবং ওই রাতেই ঘুমন্ত অবস্থায় নাসিমা ব্লেড দিয়ে স্বামীর পুরুষাঙ্গ কেটে দেয়।এ ব্যাপারে দ্বিতীয় স্ত্রী নাসিমার বিরুদ্ধে মামলার প্রস্তুতি চলছে।

[[ আপনি জানেন কি? আমাদের সাইটে আপনিও পারবেন আপনার নিজের লেখা জমা দেওয়ার মাধ্যমে আপনার বা আপনার এলাকার খবর তুলে ধরতে জানতেএখানে ক্লিক করুণতুলে ধরুন  নিজে জানুন এবং অন্যকে জানান ]] আর আমাদের ফেসবুক ফ্যানপেজে রয়েছে অনেক মজার মজার সব ভিডিও সহ আরো অনেক মজার মজার টিপস  তাই এগুলো থেকে  বঞ্চিত হতে না চাইলে এক্ষনি আমাদের ফেসবুক ফ্যানপেজে লাইক দিয়ে আসুন। আমাদের ফেসবুক ফ্যানপেজে যেতে এখানে ক্লিক করুন।  এবং আপনি এখন থেকে প্রবাস জীবনে আমাদের সাইটের মাধ্যমে আপনার যেকোনো বেক্তিগত জিনিসের ক্রয়/বিক্রয় সহ সকল ধররেন বিজ্ঞাপন ফ্রিতে দিতে পাড়বেন। জানতে এখানে ক্লিক করুন।

*****লেখাটি ভালো লাগলে আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুণ!*****

সম্পর্কিত আরো কিছু পোস্ট দেখতে পারেন...

এমিরেটসের বিশেষ ছাড়
শাহজালাল বিমানবন্দর ইমিগ্রেশনে যাত্রী হয়রানি
সবাইকে সতর্ক করুণ!! বাংলাদেশে মোবাইল ফোনে অভিনব প্রতারণা বেড়েই চলেছে
পাসপোর্ট করার ক্ষেত্রে তুলে নেওয়া হচ্ছে যন্ত্রণাদায়ক পুলিশ ভেরিফিকেশন!! পুলিশ ভেরিফিকেশন ছাড়াই করা য...
প্রবাসীদের মাইনাস করে ভোটার তালিকা হালনাগাদ অসাংবিধানিক
ইউরোপের যেকোনো ভিসা পাওয়া যায় কেরানীগঞ্জে

এই লেখাটি লিখেছেন...

– সে এই পর্যন্ত 6 টি পোস্ট লিখেছেন এই সাইট এর জন্য আমিওপারি ডট কম.

লেখকের সাথে যোগাযোগ করুন !

আপনার মন্তব্য লিখুন

{ 0 comments… add one now }

Leave a Comment